টাঙ্গাইলে ৮ম শ্রেণির ছাত্রী ধর্ষণের শিকার (ভিডিও সহ)

প্রকাশিত : ৩ মার্চ, ২০১৯
মো. আল-আমিন খান
চীফ রিপোর্টার

টাঙ্গাইল সদর উপজেলার বাসচান্দা এলাকায় প্রেমের ফাদেঁ ফেলে ৮ম শ্রেণীর এক স্কুল ছাত্রী ধর্ষণের শিকার হয়েছে। মুমুর্ষ অবস্থায় ওই স্কুল ছাত্রী টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি রয়েছে। তবে এ ঘটনায় ধর্ষিতা মা বাদী হয়ে মডেল থানায় নারী শিশু নির্যাতন দমন আইনে মামলা দায়ের করেছে।

ধর্ষিতা ছাত্রী ও তার পরিবার জানান, টাঙ্গাইলের ঘাটাইল উপজেলার হামিদপুর এলাকার লিটন মিয়ার ছেলে রিফাত টাঙ্গাইল পৌর এলাকার কাগমারায় মামার বাড়িতে থেকে লেখাপড়া করে। এ সুযোগে রিফাতের যাতায়াত চলে ওই স্কুল ছাত্রীর বসবাসরত বাসচান্দা এলাকায়।

বেশ কিছুদিন যাতায়াত পর ওই ছাত্রীর মোবাইল ফোন নম্বার সংগ্রহ করাসহ উত্যক্ত করতে থাকে রিফাত। উত্যক্তের এক পর্যায়ে গত তিন মাস যাবৎ তাদের মধ্যে গড়ে ওঠে প্রেমের সম্পর্ক। ওই প্রেমের সুত্র ধরেই গত ২৫ ফেব্রুয়ারী সোমবার দুপুরে স্কুল থেকে বাড়ি ফেরার পথে ছাত্রীকে ধর্ষক রিফাত কৌশলে তার কাগমারার মামার বাড়িতে নিয়ে জোর পূর্বক ধর্ষণ করে। এ সময় স্কুল ছাত্রী রক্তাক্ত ও জ্ঞান হারিয়ে ফেললে ধর্ষক রিফাত সেখান থেকে পালিয়ে যায়।

এদিকে স্কুল ছুটির পরও ওই ছাত্রী বাড়িতে না ফেরায় অনেক খোজাখুজির পরে ধর্ষিতা ছাত্রীর সন্ধান পয়ে রক্তাক্ত অবস্থায় উদ্ধার করে টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালে ভর্তি করেন তার মা।
এ ঘটনায় ধর্ষিতা ছাত্রীর মা বাদী হয়ে রিফাতকে প্রধান আসামী করাসহ ২জনের নামে টাঙ্গাইল মডেল থানায় একটি মামলা দায়ের করেন। অপরাধীদের দ্রুত আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্ত মূলক শাস্তির দাবী জানিয়েছেন তার পরিবার ও এলাকাবাসী।

এ বিষয়ে টাঙ্গাইল জেনারেল হাসপাতালের তত্ত্বাবধায়ক ডা.নারায়ন চন্দ্র সাহা জানান, ওই ছাত্রীর শারীরিক পরীক্ষা করানো হয়েছে। প্রাথমিকভাবে ধর্ষণের আলামত পাওয়া গেছে। বর্তমানে মেয়েটি আশংকা মুক্ত বলেও জানান তিনি।

এ প্রসঙ্গে টাঙ্গাইল মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মো. সায়েদুর রহমান জানান, এ ঘটনায় ধর্ষিতা ছাত্রীর মা বাদী হয়ে নারী শিশু নির্যাতন দমন আইনে একটি মামলা দায়ের করেছেন। এ ঘটনায় জড়িত আসামীদের ধরতে অভিযান অব্যাহত রয়েছে।

আপনার মতামত দিন

You must be Logged in to post comment.

এইমাত্র পাওয়া
error: দাঁড়ান আপনি জানেন না কপিরাইট আইনে দণ্ডনীয় অপরাধ