প্রকাশকাল: ৪ আগস্ট, ২০১৭

ধনবাড়ীতে ধর্ষণ চেষ্টা মামলায় কাউন্সিলর গ্রেপ্তার

ধনবাড়ী সংবাদদাতাঃ


টাঙ্গাইলের ধনবাড়ীতে ধর্ষণ চেষ্টার মামলায় অভিযুক্ত একমাত্র আসামী যুবলীগ নেতা ধনবাড়ী পৌরসভার ৪নং ওয়ার্ডের বর্তমান কাউন্সিলর কাজী আল-আমিনকে গ্রেপ্তার করেছে ধনবাড়ী থানা পুলিশ। বুধবার (২ আগস্ট) রাতে পৌর শহরের সমবায় সুপার মার্কেটের আওয়ামী লীগ অফিসের পেছন থেকে তাঁকে গ্রেপ্তার করা হয়। আল-আমিন ধনবাড়ী উপজেলা আওয়ামী যুবলীগের তথ্য ও গবেষণা বিষয়ক সম্পাদক।
ধনবাড়ী থানার অফিসার ইনচার্জ মজিবর রহমান জানান, কাউন্সিলর আল-আমিনের রিরুদ্ধে জনৈক প্রবাসীর স্ত্রী তার পড়নের কাপড় খুলে শ্লীলতাহানী ও ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগ এনে ধনবাড়ী থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে মামলা করেছেন। এ মামলার পলাতক আসামী কাজী আল-আমিনকে গোপন সংবাদের ভিত্তিতে বধুবার (২ আগস্ট) রাতে পৌর শহর থেকে গ্রেপ্তার করা হয় এবং বৃহস্পতিবার (৩ আগস্ট) সকালে টাঙ্গাইল আদালতে তাকে সোপর্দ করা হয়। পরে আদালত তাকে জেলহাজতে পাঠানো নির্দেশ দেন।
মামলার অভিযোগপত্র থেকে জানা যায়, টাঙ্গাইলের ধনবাড়ী পৌরসভার ৪নং ওয়ার্ডের বর্তমান কাউন্সিলর ধনবাড়ী পৌরসভার সর্দারপাড়া গ্রামের কাজী বাড়ির কাজী আব্দুর রাজ্জাকের ছেলে কাজী আল-আমিন গত (৩ জানুয়ারি) গভীর রাতে পাশের বাড়ির জনৈক প্রবাসীর স্ত্রীর ঘরে ঢুকে মুখ চেপে ধরে পড়নের কাপড় খুলে জোরপূর্বক ধর্ষণের চেষ্টা করে। এক পর্যায়ে ওই মহিলার ধস্তাধস্তি ও ডাক চিৎকারে লোকজন এগিয়ে এলে সে তার ব্যবহৃত মোবাইল ফোন ফেলে দৌড়ে পালিয়ে যায়। এ ঘটনায় নির্যাতনের শিকার প্রবাসীর স্ত্রী বাদী হয়ে ওই দিনই ধনবাড়ী থানায় নারী ও শিশু নির্যাতন আইনে যুবলীগ নেতা ও কাউন্সিলর কাজী আল-আমিনকে একমাত্র আসামী করে মামলা দায়ের করেন। এ ঘটনায় এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। এলাকাবাসী তার বিচার দাবী করেছেন।

এ রকম আরোও খবর

আপনার মতামত দিন

You must be Logged in to post comment.

এইমাত্র পাওয়া
error: দাঁড়ান আপনি জানেন না কপিরাইট আইনে দণ্ডনীয় অপরাধ