ফ্রান্সে মহানবীর ব্যঙ্গচিত্র প্রদর্শনের প্রতিবাদে টাঙ্গাইলে বিক্ষোভ

প্রকাশিত : ১ নভেম্বর, ২০২০

ফ্রান্সে বিশ্বনবী হযরত মোহাম্মদ (সাঃ) এর ব্যঙ্গচিত্র প্রদর্শনের প্রতিবাদ ও ফ্রান্সের সকল পণ্য নিষিদ্ধের দাবিতে টাঙ্গাইলে বিক্ষোভ মিছিল ও সমাবেশ করেছে বার্থা জিয়ান খান (রহঃ) জামে মসজিদ ও সর্বস্তরের জনগণ।

রোববার (১ নভেম্বর) দুপুর ২ টায় বার্থা জিয়ান খান (রহঃ) জামে মসজিদের ইমাম মুফতি মাসউদুর রাহমান মাজেদীর নেতৃত্বে মসজিদ প্রাঙ্গণ থেকে বিক্ষোভ মিছিলটি শুরু হয়ে গালা ও ঘারিন্দা ইউনিয়নের কয়েকটি এলাকা প্রদক্ষিণ করে। পরে মিছিলটি মসজিদ প্রাঙ্গনে এসে শেষ হয়। বিক্ষোভ মিছিলে দল-মত নির্বিশেষে সকল শ্রেণি পেশার শত শত মানুষ অংশ নেয়।

সমাবেশে বক্তারা ফ্রান্সের সকল পণ্য বাংলাদেশে নিষিদ্ধ ঘোষণা করার দাবি জানান। পাশপাশি ফ্রান্সের প্রধানমন্ত্রীর দেওয়া ইসলাম ধর্ম নিয়ে অবমাননাকর বক্তব্য প্রত্যাহার করে বিশ্ববাসীর কাছে ক্ষমা প্রার্থনা না করলে কঠোর আন্দোলনের হুশিয়ারি দেন বক্তারা।

সমাবেশে মুফতি মাসউদুর রাহমান মাজেদী বলেন, বাক স্বাধীনতার নামে ফ্রান্স ইসলামবিরোধী চরম অসত্য ও নোংরা খেলা শুরু করেছে। সরকারি বহুতল ভবনে পুলিশ পাহারায় বিশ্বনবী হযরত মোহাম্মদ (সাঃ) এর ব্যঙ্গচিত্র প্রদর্শন করেছে। আমরা এর প্রতিবাদ এবং নাস্তিকতা ও ধর্মহীনতার দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানাচ্ছি।

সমাবেশে বক্তারা বলেন, ফ্রান্সের প্রধানমন্ত্রীও কিছুদিন আগে ইসলাম ধর্ম নিয়ে অবমাননাকর বক্তব্য দিয়েছেন। এসব উগ্র কর্মকান্ড প্রমাণ করে যে, তারা বাক স্বাধীনতার নামে ইসলাম ও মুসলমানদের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করেছে। এ ধরনের কর্মকান্ডের বিরুদ্ধে অবস্থান নেওয়া মুসলমানদের নৈতিক ও ঈমানী দায়িত্ব। আমরা স্পষ্ট জানিয়ে দিতে চাই, বিশ্বনবী (সাঃ) কে অপমান বরদাশত করা হবে না। আমরা সকল মুসলমানদের প্রতি ফ্রান্সের সকল প্রকার পণ্য বর্জন করার আহ্বান জানাচ্ছি। পাশাপাশি ব্যবসায়ী ভাইদেরকে ফ্রান্সের পণ্য আমদানী না করার আহ্বান জানাচ্ছি।

সমাবেশে উপস্থিত ছিলেন, বীর মুক্তিযোদ্ধা মো. মকবুল খান, আলহাজ আকবর খান, আব্দুল বারেক খান, আব্দুল রহিম খান, মো. কোরআন, আজিজ খান, আরিফ হোসেন, হাফেজ শাকিব খান, আব্দুল মালেক, শরিফ, রিফাত প্রমুখ।

সাপ্তাহিক গণবিপ্লব
এইমাত্র পাওয়া