মাভাবিপ্রবিতে আর্জেন্টিনা সমর্থক গোষ্ঠীর ৪ বছর মেয়াদী কমিটি গঠন

প্রকাশিত : ৩০ মে, ২০১৮
গণবিপ্লব
রিপোর্ট

মাভাবিপ্রবি প্রতিনিধি:

মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ে ফুটবল বিশ্বকাপ-২০১৮ এর ৪ বছর মেয়াদী আর্জেন্টিনা সমর্থক গোষ্ঠীর কমিটি গঠিত হয়েছে। মঙ্গলবার রাত ৯ টায় বিশ্ববিদ্যালয়ের বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবর রহমান হলের অতিথি কক্ষে আর্জেন্টিনা সমর্থকদের সম্মতিক্রমে ইয়াসিন আরাফাতকে সভাপতি এবং মো. রাজিকুর রহমানকে সাধারন সম্পাদক করে কমিটি গঠন করা হয়।

এছাড়াও আব্দুস সালাম শাওন, কাজী মো. রফিকুল ইসলাম, জয় সরকার, কাজী সাব্বির রোমেন, মাহমুদ ইমরান রাব্বী, আরিফ মাহমুদ ও কনক সরোয়ারকে সহ-সভাপতি, জুলফিকার রহমান মিলন, নাসিফ ইবনে আমেজ জীম, মো. যুবায়উর রহমান মিশু, শরীফ ভূইয়া, মো. আজমীর ও আরিফ ইস্তিয়াককে যুগ্ম-সাধারন সম্পাদক, আল হাসান নূর (বাপ্পী), এস. এইচ. স্বাধীন, নিশাদ হাবীব, সোহেল রানা, ওয়াকিল ভূইয়া ও হিমেল খানকে সাংগঠনিক সম্পাদক, অমিত আচার্যকে প্রচার সম্পাদক, শুভ বিশ্বাসকে দপ্তর সম্পাদক, নাজমুল হাসানকে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান হল দখল বিষয়ক সম্পাদক, আবুল বাশারকে মুক্তিযোদ্ধা আব্দুল মান্নান হল দখল বিষয়ক সম্পাদক, ফখরুল আলম সৌরভকে জিয়াউর রহমান হল দখল বিষয়ক সম্পাদক, হুমায়ূন হিমুকে গুটিবাজ প্রতিরোধ বিষয়ক সম্পাদক, ফাহিদ এনামকে অশুভ শক্তি মোকাবেলা বিষয়ক সম্পাদক, তুহিন ইসলাম স্বার্থককে অপপ্রচার মোকাবেলা বিষয়ক সম্পাদক, রাশেদুজ্জামান রাশেদকে সেভেন আপ বিষয়ক সম্পাদক, শিহাব উদ্দিন রিকুকে ম্যাচ অ্যানালাইসিস বিষয়ক সম্পাদক, নাইম আহমেদকে মিছিল বিষয়ক সম্পাদক, আজিম হোসেনকে উস্কানি প্রতিরোধ বিষয়ক সম্পাদক, সায়েখ করিমকে ফাপরবাজ প্রতিরোধ বিষয়ক সম্পাদক, নাদিম হাসানকে হাইলাইটস বিষয়ক সম্পাদক, ইয়াসিন আরাফাতকে অনুপ্রবেশকারী ঠেকানো বিষয়ক সম্পাদক, মাহাবুবা ইয়াসমিনকে জাহানারা ইমাম হল দখল বিষয়ক সম্পাদক, সুমাইয়া নাসরীন পাপড়িকে আলেমা খাতুন হল দখল বিষয়ক সম্পাদক, সম্পা গোস্বামীকে স্লেজিং বিষয়ক সম্পাদক, জুই ¤্রং জেরীকে গুজব প্রতিরোধ বিষয়ক সম্পাদক, মুবাশ্বিরীন মিতুকে সোস্যাল মিডিয়া বিষয়ক সম্পাদক, মাহমুদুল খানকে পেনাল্টি বিষয়ক সম্পাদক, শামীমা জুথিকে প্রমিলা দর্শক বিষয়ক সম্পাদক, প্রসেনজিৎকে হা হা রিয়্যাক্ট বিষয়ক সম্পাদক, বেল্লাল হোসেনকে বিতর্ক বিষয়ক সম্পাদক, মশিউর রাব্বীকে অফসাইড বিষয়ক সম্পাদক, অর্ণব ধরকে পতাকা বিষয়ক সম্পাদক, মাহমুদুল ইসলাম ইমরানকে ফার্স্ট গেট দখল বিষয়ক সম্পাদক, রাকিন ফারহান দীপ্তকে সেকেন্ড গেট দখল বিষয়ক সম্পাদক, মেহেদী হাসান নোবেলকে স্বপ্ন চত্তর দখল বিষয়ক সম্পাদক, রাকিবুল হাসানকে বুদ্ধিজীবী চত্তর দখল বিষয়ক সম্পাদক, রবিন মজুমদারকে হাতির কবর দখল বিষয়ক সম্পাদক, সৈয়দ আহমেদ বাকীকে ফাউল বিষয়ক সম্পাদক, খালিদ সাইফুল্লাহকে পল্টিবাজ প্রতিরোধ বিষয়ক সম্পাদক, শরীফুল ইসলাম আমানকে সাইড লাইন বিষয়ক সম্পাদক, শুভ পালকে বিদ্রুপ প্রতিরোধ বিষয়ক সম্পাদক, আখতারুজ্জামান শাকিলকে কমেন্ট বিষয়ক সম্পাদক, ইসা খানকে অনলাইন অপপ্রচার প্রতিরোধ বিষয়ক সম্পাদক, আবদি সাকুর সানিমকে কাউয়া নির্মূল বিষয়ক সম্পাদক, এস.টি.এম. তৌহিদকে লাল কার্ড বিষয়ক সম্পাদক, তরিকুল ইসলাম রাকেশকে প্রজেক্টর বিষয়ক সম্পাদক, মোস্তাফিজুর রহমান নাফীসকে হলুদ কার্ড বিষয়ক সম্পাদক, আদনান সাকিবকে ফরোয়ার্ড বিষয়ক সম্পাদক, সজীব হাসান আকাশকে মিডফিল্ড বিষয়ক সম্পাদক, শামীমকে ডিফেন্স বিষয়ক সম্পাদক, নাদিম চৌধুরীকে হাফটাইম বিষয়ক সম্পাদক, মামুন হোসেনকে একষ্ট্রাটাইম বিষয়ক সম্পাদক, মাহবুব মোর্শেদকে ফরমেশন বিষয়ক সম্পাদক, আরমান তুষারকে গোলবার বিষয়ক সম্পাদক,জিম আদনানকে ম্যানেজার বিষয়ক সম্পাদক, মো. রায়হান ইসলামকে রেফারী বিষয়ক সম্পাদক, সাব্বির আহমেদকে উল্লাস বিষয়ক সম্পাদক, শাহ্ আলমকে গ্যালারী বিষয়ক সম্পাদক, সানাউল ইসলামকে রাবেল (রাশিয়ান মুদ্রা) বিষয়ক সম্পাদক, মো. তামিম হাসানকে পেসো বিষয়ক সম্পাদক, মোস্তাক আহমেদকে হোম জার্সি বিষয়ক সম্পাদক, এস. ইসলাম নাহিদকে অ্যাওয়ে জার্সি বিষয়ক সম্পাদক, সানোয়ার শাকিলকে ইনজুরি বিষয়ক সম্পাদক, রবিউল ইসলামকে সাইড বেঞ্চ বিষয়ক সম্পাদক, হালিমকে খেলোয়ার পরিবর্তন বিষয়ক সম্পাদক, মোক্তারকে সংঘর্ষ প্রতিরোধ বিষয়ক সম্পাদক, রাফসান জানিকে ফেয়ার প্লে বিষয়ক সম্পাদক, নওশাদ নাসিমকে ভবিষ্যৎবাণী বিষয়ক সম্পাদক, মাহমুদ মুন্না, দেলোয়ার হোসাইন, আব্দুল মুকিত, লোকমান হাকিম, নিয়াজ মাহমুদ, আলি আনসার, রাফি আমান, আরাফাত ইসলাম, রাকিব, ওমর ফারুক, শাকির হোসেন, শাওন আহমেদ তুষার, উজ্জ্বল হোসেন, মো: নাসিরুল্লাহ, রাশেদুল রাসেল, ফাতেহ আল মুজিব, রাগিব শাহরিয়ার, মাসুম, মীম, সাকিব, সবুজ, রাশেদ হাসান, এস. এম. হযরত আলী, আরিফ, আরমান তুষার, শেখ শুভ, উল্লাস, নিয়াজ মোরশেদ রেজা, অনিক, অন্তর মাহমুদ সজীব, মেহেদী হাসান, ইমন, ফরহাদ হোসেন, প্রদীপ কুমার, রাসেল, সারোয়ার হাসান, রিফাত আহমেদ, মেহেদী কবির, তৌফির আহমেদ, সিয়াম, মশিউর রহমান, এমদাদুল হক, সুকান্ত, নিয়াজ রহমান, মেহেদী হাসান নিশাদ, তমাল, সুমন, শরীফুল ইসলাম, ফাতেহ আল মুজিব, রনি, প্রতীক গুণ, মেহেদী কবির, শামীম হোসেন, বারেক সিয়াম, মেহেদী হাসান নিশাদ, সুকান্ত মন্ডল, সরোয়ার রহমান, রাশেদুল রাসেল, আরাফাত ইসলাম, রুহুল আমিন, ফাহিম, আসিফ, জাকির হোসেন ও সুমন রেজা সহ সর্বমোট ১৯৪৮ জন সদস্যের নাম কমিটিতে উল্লেখ করা হয়।

গঠিত কমিটি সম্পর্কে নব-নির্বাচিত সভাপতি ইয়াসিন আরাফাত বলেন, আমি সর্বপ্রথম মাওলানা ভাসানী বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ^বিদ্যালয়ের আর্জেন্টিনা সমর্থকদের প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করছি। আমরা যে বিশ্ববিদ্যালয়ের সর্ব বৃহৎ সমর্থক গোষ্ঠী তা বলার অপেক্ষা রাখে না। আমরা কথা নয় কাজে বিশ্বাসী, সময় কথা বলবে। আর্জেন্টিনার এত বেশি সমর্থক যে অধিকাংশ সমর্থকদের আমরা কমিটিতে স্থান দিতে পারিনি। আমি তাদের জন্য দুঃখ প্রকাশ করছি।

উল্লেখ্য, কমিটিকে উপদেষ্টা সজীব তালুকদার, সাইদুর রহমান, নূর নবী সিদ্দীকী, মো. ইমরান মিয়া, আশরাফুল ইসলাম ও আরিফুল ইসলামের সুপারিশক্রমে দিয়াগো ম্যারাডোনা এবং লিওলেন মেসি অনুমোদন করেন।

আপনার মতামত দিন

You must be Logged in to post comment.

এইমাত্র পাওয়া
error: দাঁড়ান আপনি জানেন না কপিরাইট আইনে দণ্ডনীয় অপরাধ