সিরাজগঞ্জে র‍্যাবের সঙ্গে ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত ২

প্রকাশিত : ২৫ আগস্ট, ২০১৬

সিরাজগঞ্জ সংবাদদাতাঃ

বন্ধুক যোধ যুদ্ধ

সিরাজগঞ্জের কামারখন্দ উপজেলার জামতৈল গ্রামে র‍্যাবের সঙ্গে কথিত  বন্দুকযুদ্ধে দুইজন নিহত হয়েছেন। নিহতরা হলেন সিরাজগঞ্জের কামারখন্দ উপজেলার ভারাঙ্গা গ্রামের দশের আলীর ছেলে সানোয়ার হোসেন (৩২) ও পাবনা জেলার চাটমোহর উপজেলার আংকুটিয়া গ্রামের মাজেম মণ্ডলের ছেলে লুৎফর আলী (৫৫)।

ঘটনাস্থল থেকে বিদেশি পিস্তল, পাইপগান, গুলিসহ অস্ত্র উদ্ধার করা হয়েছে বলে দাবি করেছে র‍্যাব।

র‍্যাব ১২’র ক্যাম্প কমান্ডার এডিশনাল ডিআইজি শাহবুদ্দিন খান বৃহস্পতিবার ২৫ আগস্ট সকাল ১০টায় প্রেসব্রিফিংয়ে বলেন, “কয়েকজন সন্ত্রাসী কামারখন্দ উপজেলার জামতৈল কলেজপাড়া গ্রামে সন্ত্রাসী কার্যকলাপ করার জন্য সংঘবদ্ধ হচ্ছে- এমন গোপন সংবাদের ভিত্তিতে র‍্যাব সেখানে উপস্থিত হয়। এ সময় সন্ত্রাসীরা র‍্যাবের ওপর গুলি চালালে আত্মরক্ষার্থে র‍্যাবও পাল্টা গুলি চালায়। প্রায় ৩০ মিনিট গোলাগুলির পর সন্ত্রাসীরা পিছু হটে। পরে তারা পালিয়ে গেলেও কলেজপাড়া এলাকার ব্রিজের কাছে দুই সন্ত্রাসীকে গুলিবিদ্ধ হয়ে পড়ে থাকতে দেখা যায়। এলাকাবাসীর সহায়তায় তাদেরকে উদ্ধার করে সিরাজগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে নেওয়া হলে সেখানে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাদেরকে মৃত ঘোষণা করেন।”

প্রেসব্রিফিংয়ে আরো বলা হয়, “ঘটনাস্থলে তল্লাশি চালিয়ে একটি বিদেশি  পিস্তল, একটি পাইপগান, দুইটি ছুরি, আট রাউন্ড গুলি উদ্ধার করা হয়।”  তিনি বলেন, “তারা ডাকাতি করার জন্য সেখানে জড়ো হয়েছিল। আকস্মিক র‍্যাবের উপস্থিতি টের পেয়ে তারা গুলি ছোড়ে।”

প্রেসব্রিফিংয়ে আরো বলা হয়, “সানোয়ারের বিরুদ্ধে সিরাজগঞ্জের বিভিন্ন থানায় হত্যা, ডাকাতিসহ আটটি মামলা রয়েছে। অপরদিকে লুৎফর রহমানের নামেও একাধিক মামলা রয়েছে। লাশ দুটি বর্তমানে সিরাজগঞ্জ জেনারেল হাসপাতাল মর্গে রাখা হয়েছে। ময়নাতদন্ত শেষে তাদেরকে পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হবে। এ ব্যাপারে মামলার প্রস্তুতি নেওয়া হয়েছে।”

সাপ্তাহিক গণবিপ্লব
এইমাত্র পাওয়া