মির্জাপুরে চাল নিয়ে নয় ছয় বন্ধে সভা

প্রকাশিত : ১৭ এপ্রিল, ২০২০

টাঙ্গাইলের মির্জাপুরে খাদ্যবান্ধব কর্মসূচীর ১০ টাকা কেজি দরের চাল নিয়ে নয় ছয় বন্ধে ডিলারদের নিয়ে জরুরি সভা করেছেন উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আবদুল মালেক।

বৃহস্পতিবার সকালে উপজেলা পরিষদ মিলনায়তনে ইউএনও আবদুল মালেকের সভাপতিত্বে সভায় অন্যদের মধ্যে উপস্থিত ছিলেন উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) মো. জুবায়ের হোসেন, উপজেলা খাদ্য নিয়ন্ত্রক শাব্বির আহমেদ মুরাদ, প্রেসকাব মির্জাপুরের সভাপতি জাহাঙ্গীর হোসেন প্রমুখ।

এতে উপজেলার ১৪টি ইউনিয়নের ২৮ জন ডিলারের মধ্যে ২৭ জন অংশ নেয়। উপজেলার ভাতগ্রাম ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সভাপতি ও ওই ইউনিয়নের খাদ্যবান্ধব কর্মসূচীর ডিলার আশরাফুল আলম বাচ্চু গত ১৩ এপ্রিল চাল বিক্রির সময় ওজনে কম দেয়ায় তাকে দেড় লাখ টাকা জরিমানা করে ভ্রাম্যমান আদালতের বিচারক। এসময় তার লাইন্সেসও বাতিল করায় তিনি বৈঠকে অংশ নিতে পারেননি।

সভায় উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা আবদুল মালেক বলেন, করোনা ভাইরাসের কারণে মানব সভ্যতা আজ হুমকির মুখে। দেশের কোটি কোটি ঘরবন্ধি মানুষ আজ খাদ্য সংকটে পড়েছে। একজন মানুষও যেন অভুক্ত না থাকেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা সেজন্য একের পর এক কর্মসূচী বাস্তয়ন করে যাচ্ছেন।

তিনি ডিলারদের বলেন, এই মূহুর্তে ব্যবসায়ীক চিন্তা বাদ দিয়ে মানবিকতার দায়িত্ব পালন করতে হবে। খাদ্যবিভাগের কর্মকর্তা-কর্মচারী উদ্দেশ্যে ইউএনও হুশিয়ারি উচ্চারন করে বলেন, দায়িত্ব পালনে অবহেলাসহ কোন অবস্থায় নয় ছয় বরদাস করা হবে না।

ডিলারদের পক্ষে উপজেলার হাটুভাঙা বাজারের ব্যবসায়ী আব্দুল কাদের সিকদার বলেন, দেশের এই দুর্যোগ মুহুর্তে অভুক্ত মানুষের মুখে খাদ্য তুলে দিতে মানবতার মা জননেত্রী শেখ হাসিনা যে লড়াই করছেন ব্যবসায়ীক চিন্তা বাদ দিয়ে আজ থেকে তারাও সেই লড়াইয়ে শরীক হবেন বলে উল্লেখ করেন।

এসময় ইউএনও আবদুল মালেক ডিলারদের ধন্যবাদ জানিয়ে করোনা দুর্যোগ মোকাবেলার যুদ্ধে সকলকে শরীক হওয়ার আহবান জানান।

সাপ্তাহিক গণবিপ্লব
এইমাত্র পাওয়া