টাঙ্গাইলের কালিহাতী উপজেলার সহদেবপুর ইউনিয়নের শহীদ জামাল উচ্চ বিদ্যালয়ের সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপন উপলক্ষে সংবাদ সম্মেলন করেছে উদযাপন পরিষদ।


শনিবার (১৯ মার্চ) বিকালে বিদ্যালয় চত্বরে সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপন পরিষদের আহ্বায়ক অধ্যাপক মো. আরমান আলীর সভাপতিত্বে এ সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।


সংবাদ সম্মেলনে অধ্যাপক আরমান আলী জানান, ১৯৭২ সালে এ বিদ্যালয়টি প্রতিষ্ঠা করা হয়। সেই সুবাধে ৫০ বছরে বিদ্যালয়টি পা রাখে। তারই ধারাবাহিকতায় বিদ্যালয়ের প্রাক্তন ও বর্তমান শিক্ষক, ছাত্র-ছাত্রী, স্কুল সহকারী ও প্রতিষ্ঠাকালীন সদস্যবৃন্দের সমন্বয়ে বিভিন্ন কর্মসূচির মধ্য দিয়ে দুইদিন ব্যাপী আগামী (৪ ও ৫ মে) সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপন করা হবে। বিভিন্ন কর্মসূচির মধ্যে থাকবে র্যালী, খেলাধুলা, বর্তমান ছাত্র- ছাত্রীদের অনুভতি প্রকাশ, প্রাক্তন ছাত্র- ছাত্রীদের স্মৃতি চারণ এবং প্রতিষ্ঠাকালীন সদস্যদের বর্তমান অভিব্যক্তি, প্রাক্তন শিক্ষকদের স্মৃতি কথা, অতিথিবৃন্দ ও প্রতিষ্ঠাতার বক্তব্য এবং মনোজ্ঞ সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠান।


আয়োজিত অনুষ্ঠানে উপস্থিত থাকবেন ৭১এর টাঙ্গাইল সর্বদলীয় সংগ্রাম পরিষদের সামরিক শাখার আহ্বায়ক, সাবেক সাংসদ ও মন্ত্রী এবং অত্র বিদ্যালয়ের প্রতিষ্ঠাতা আবদুল লতিফ সিদ্দিকী ও টাঙ্গাইল-৪ (কালিহাতী) আসনের সাংসদ আলহাজ্ব হাছান ইমাম খান সোহেল হাজারী।

তিনি আরও জানান এ বিদ্যালয়ের বিগত ৫০ বছরে দেশ-বিদেশের বিভিন্ন স্থানে থাকা প্রাক্তন ও বর্তমান শিক্ষার্থীদের রেজিস্ট্রেশনের জন্য উদযাপন পরিষদ sj.biapps.net এই ওয়েবসাইট চালু করেছে। এই ওয়েব সাইটের মাধ্যমে প্রাক্তন ও বর্তমান সকল শিক্ষার্থীদের রেজিস্ট্রেশনের জন্য আহ্বান করা হচ্ছে।


এসময় সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত ছিলেন বিদ্যালয় পরিচালনা পরিষদের সভাপতি জ্ঞ্যানেন্দ্র মোহন চন্দ্র, সুবর্ণজয়ন্তী উদযাপন পরিষদের যুগ্ম আহ্বায়ক আফাজ উদ্দিন, সদস্য সচিব ও অত্র বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক রায়েজ উদ্দিন, প্রচার ও প্রকাশনা সম্পাদক অ্যাডভোকেট মোতালেব, দাতা সদস্য আব্দুল জলিল, করিম মিয়া, রেজিস্ট্রেশন উপ-কমিটির আহ্বায়ক সরোয়ার হোসেন ও বীরমুক্তিযোদ্ধা নসকর আলী, অ্যাডভোকেট আজিজুর রহমান তালুকদার প্রমুখ।